সিন্ডিকেটের কাছে জিম্মি ঈদগাও’র লবণ

IF

IF

নিজস্ব প্রতিবেদক,ঈদগাও :
দেশের অন্যতম লবণ উৎপাদন এলাকা কক্সবাজার সদরের বৃহত্তর ঈদগাঁও’র লবণ চাষীরা একটি বিশেষ সিন্ডিকেটের কাছে জিম্মি হয়ে পড়েছে। মোকামে লবণের ন্যায্য মুল্য থাকলেও একটি বিশেষ সিন্ডিকেটের অপ-তৎপরতার কারণে এলাকার লবণ চাষীরা ন্যায্য মূল্য পাওনা থেকে বঞ্চিত হচ্ছে বলে অভিযোগ উঠেছে। ওই চক্রের কারণে গত সপ্তাহ থেকে লবণের দাম পড়ে গেছে মন প্রতি প্রায় ১শ থেকে ১৫০শ  টাকা পর্যন্ত। এতে করে প্রান্তিক চাষীরা দারুনভাবে ক্ষতির মুখে পড়বেন বলে আশংকা করা হচ্ছে। চাষীরা জানান, গত সপ্তায় লবণের মন ছিল প্রায় ৪’শ থেকে ৪’শ পঞ্চাশ টাকার মধ্যে। বর্তমানে লবণ বিক্রি হচ্ছে মণ প্রতি ৩’শ থেকে ৩’শ বিশ টাকা দরে। সাদা ঘোনার লবণ চাষী জসিম উদ্দিন জানান, বর্গা, পলিথিন, সেচ, সরঞ্জাম, মজুরী মিলিয়ে কানিপ্রতি (.৪০ শতক) খরচ পড়ে প্রায় ৮০ হাজার টাকার মত। আর এ পরিমান জমি থেকে সর্বোচ্চ লবণ উৎপাদন করা যায় ৩শ থেকে সাড়ে ৩শ মনের মত। কলইস্যাঘোনার লবণ চাষী ফরিদুল আলম জানান, বিদেশ থেকে লবণ আমদানী বন্ধ ও উৎপাদন শুরুর প্রথম থেকে গত সপ্তাহ পর্যন্ত লবণের বাজার দর স্থিতিশীল থাকায় প্রান্তিক চাষীরা লাভের মুখ দেখছিল। সিন্ডিকেটিংয়ের কারণে বর্তমানে লবণের দাম পড়ে যাওয়াতে চাষীরা আবারো হতাশায় ভূগছেন বলে জানান তিনি। ভারুয়াখালীর লবণ চাষী কবির  জানান, ইসলামপুর লবণ শিল্প এলাকার মিল মালিকেরা সিন্ডিকেট করে প্রান্তিক চাষীদের ঠকানোর জন্য লবণের দর কমিয়ে দিয়েছে। চাষীরা সিন্ডিকেটটির বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে সংশ্লিষ্ঠ কতৃপক্ষের নিকট দাবী জানান।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*