ফুড ব্যাংকের উদ্যােগে চট্টগ্রামের সাতকানিয়া, বাঁশখালী, আনোয়ারা উপজেলায় খাদ্যসামগ্রী বিতরণ

করোনাভাইরাসের প্রভাবে কর্মহীন মানুষের জন্য আজ শনিবার আনোয়ারা,বাঁশখালী এবং সাতকানিয়া উপজেলায় ‘ফুডব্যাংক’ (খাদ্যভান্ডার) স্থাপন করা হয়েছে। অসহায় এবং দুঃস্থ পরিবারগুলোর সহযোগিতার জন্য ব্যতিক্রমী এই উদ্যোগ নিয়েছেন জন আকাঙ্খা বাংলাদেশ চট্টগ্রাম অঞ্চলের নেতৃবৃন্দ। প্রত্যেক উপজেলা, পৌরসভা এবং থানায় নূন্যতম দুটি ফুড বুথ স্থাপনের মিশন নিয়ে জন আকাঙ্খা সারা বাংলাদেশ ফুড ব্যাংকের কার্যক্রম গত ২৭ মার্চ থেকে পরিচালনা করে আসছে। তারা এই প্রজেক্টের নাম দিয়েছেন ”কোভিড-১৯ ফুডব্যাংক ফর বাংলাদেশী আনপ্রিভিলাজড ফ্যামিলি”। এসব খাদ্যসামগ্রী বিতরণের জন্য চট্টগ্রামে কাজ করছেন ৩০০ জন স্বেচ্ছাসেবক।
ধারাবাহিক কার্যক্রমের অংশ হিসেবে আজ আনোয়ারা উপজেলা, সাতকানিয়া উপজেলা এবং বাঁশখালী উপজেলায় ফুড ব্যাংক উদ্বোধন করা হয় । এতে উপস্থিত ছিলেন জন আকাঙ্খা চট্টগ্রাম অঞ্চলের সমন্বয়ক এডভোকেট গোলাম ফারুক, চট্টগ্রাম উত্তর জেলা সমন্বয়ক এডভোকেট মোস্তাফা নূর, চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলা সমন্বয়ক মিজান চৌধুরী, কেন্দ্রীয় ও চট্টগ্রাম মহানগরী সংগঠক ইঞ্জিনিয়ার মোহাম্মদ লোকমান, যুবনেতা ছিদ্দিকুর রহমান, শহিদুল ইসলাম বাবুল, মাওলানা মনির উদ্দিনসহ অসংখ্য ভলান্টিয়ারবৃন্দ।
নেতৃবৃন্দ বলেন, পরিসংখ্যান অনুযায়ী বাংলাদেশে প্রায় ছয় কোটি মানুষ দিনে আনে দিনে খায়। করোনা ক্রাইসিসের এই সময়ে সবকিছু লক ডাউন হয়ে যাওয়ার কারণে এইসব মানুষ খাদ্য সংকটে ভুগছে । আবার মধ্যবিত্ত পরিবারের মধ্যেও শঙ্কা বিরাজ করছে । এমতাবস্থায় জন আকাঙ্খা বাংলাদেশের প্রত্যেক পাড়ায় পাড়ায় ফুড ব্যাংক স্থাপনের উদ্যোগ অত্যন্ত তাৎপর্যপূর্ণ । তারা সমাজে বিত্তবান এবং যুবকদেরকে এই কার্যক্রমে ঝাঁপিয়ে পড়ার উদাত্ত আহ্বান জানান । তারা আরো বলেন,আমাদের মুক্তিযোদ্ধারা দেশকে স্বাধীন করার জন্য ত্যাগ স্বীকার করেছেন, আমাদেরকেও এই করোনা মহামারী মোকাবিলায় ঐক্যবদ্ধ হয়ে অসহায় এবং দুঃস্থ পরিবারের পাশে দাঁড়াতে হবে । খবর বিজ্ঞপ্তি

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*