চট্টগ্রামে ৭ প্রকল্প উদ্বোধন করলেন সেতুমন্ত্রী

চট্টগ্রাম অফিস:

প্রায় ৫২৪ কোটি টাকা ব্যয়ে ৭টি প্রকল্পের কাজ উদ্বোধন করেছেন সেতুমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের। রোববার (২৭ অক্টোবর) সকাল ১০টায় আগ্রাবাদ সড়ক ভবনের সম্মেলন কক্ষে তিনি এসব প্রকল্পের কাজ উদ্বোধন করেন। প্রকল্পগুলোর মধ্যে রয়েছে- প্রায় ৪৫৮ কোটি ব্যয়ে চট্টগ্রাম-রাঙামাটি জাতীয় মহাসড়ক (এন-১০৬) হাটহাজারী থেকে রাউজান পর্যন্ত ৪ লেনের প্রকল্প, এক কোটি টাকা ব্যয়ে ফটিকছড়ি সড়ক উপ-বিভাগ অফিস কাম পরিদর্শন বাংলো নির্মাণ প্রকল্প, শাহ আমানত সেতুর ইলেকট্রনিক্স টোল সিস্টেম ও ওজন স্কেলের কার্যক্রম, ৫ কোটি টাকা ব্যয়ে চট্টগ্রাম-কাপ্তাই আঞ্চলিক মহাসড়কের ৪৪তম কিলোমিটারে ৩১ দশমিক ৮২ মিটার দীর্ঘ পিসি গার্ডার সেতু প্রকল্প, সীতাকুণ্ডের বড় দারোগারহাট ওজন স্কেলের নবনির্মিত ৫ম লেনের কার্যক্রম। এছাড়া প্রায় ৩০ কোটি টাকা ব্যয়ে মইজ্জারটেক-বিএফডিসি-মৎসবন্দর ফেরিঘাট সড়কে ২টি পিসি গার্ডার সেতুর পুনঃনির্মাণসহ এক কিলোমিটার থেকে ৫ কিলোমিটার পর্যন্ত সেতু মজবুতকরণ, সম্প্রসারণ ও নতুন সড়ক নির্মাণ কাজ প্রকল্প এবং প্রায় ৩০ কোটি টাকা ব্যয়ে কাশিমপুর-রেলওয়ে স্টেশন-বাগিচারহাট সড়কের চেইনেজ: ০+০০০ থেকে ১০+০০০০ কিলোমিটার পর্যন্ত ফ্লেক্সিবল পেভমেন্ট ও রিজিড পেভমেন্ট দ্বারা মান উন্নীতকরণ প্রকল্প উদ্বোধন করেন সেতুমন্ত্রী।উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বক্তব্য দেন সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের। সরওয়ারপরে আগ্রাবাদ সড়ক ভবনের সম্মেলন কক্ষে উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘আমরা ৫২ হাজার কোটি টাকা ব্যয়ে ঢাকায় ৬টি মেট্রো লাইন করতে যাচ্ছি। ৪২ হাজার কোটি টাকা ব্যয়ে মেট্রো ৫ এর কাজও একনেকে অনুমোদন হয়েছে। ফিজিক্যাল কনস্ট্রাকশনের কাজ শেষ হয়েছে। ২০৩০ সাল নাগাদ ৬টি মেট্রোলাইন ঢাকাকে সব দিক দিয়ে কানেক্ট করবে। তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশে বন্দরনগর চট্টগ্রামেও মেট্রোলাইন করা হবে। সেই লক্ষে রোডস অ্যান্ড হাইওয়েকে সম্ভাব্যতা যাচাই করার নির্দেশ দিয়েছি। খুব শিগগিরই সম্ভাব্যতা যাচাই করার কাজ শুরু হবে। ৭ প্রকল্প উদ্বোধন করলেন সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের। সরওয়ারবঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান কর্ণফুলী টানেলের কাজ ৪৮ শতাংশ শেষ হয়েছে উল্লেখ করে সেতুমন্ত্রী বলেন, এই প্রকল্পটি মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার অগ্রাধিকারভিত্তিক মেগা প্রকল্প। বাংলাদেশে প্রথম নদীর তলদেশে টানেল নির্মাণ হচ্ছে। প্রধানমন্ত্রী নিজেই এটির উদ্বোধন করে গেছেন। তার সঙ্গে আমিও ছিলাম। এই টানেলের কাজ শেষ হলে পাল্টে যাবে চট্টগ্রাম। মৃত্যু থেকে অলৌকিকভাবে ফিরে এসেছেন উল্লেখ করে ওবায়দুল কাদের বলেন, সবাই আমার জন্য দোয়া করেছেন। আমি যেখান থেকে ফিরে এসেছি, সেটি অলৌকিকভাবে। স্বপ্নেও ভাবিনি এভাবে ফিরে আসবো। আল্লাহর অশেষ রহমত, মানুষের দোয়া ও নেত্রীর বিচক্ষণতায় পুরো চিকিৎসা শেষে সুস্থ হয়েছি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*